Buscar
09:22h. Jueves, 20 de Septiembre de 2018

নতুন রেকর্ডের পথে রিয়াল মাদ্রিদ

চমকপ্রদ নৈপুণ্য অক্ষুন্ন রেখে ধারাবাহিক ১৮ ম্যাচে জয়ের রেকর্ডে পৌঁছে যাওয়া লা লিগার শীর্ষ পয়েন্টধারী রিয়াল মাদ্রিদ এখন নতুন রেকর্ড গড়ার দিকে তাকিয়ে আছে।শনিবার সেল্টাভিগোর বিপক্ষে লীগ ম্যাচে জয় পেলেই তারা পৌঁছে যাবে নতুন রেকর্ডে। আর সেটি হচ্ছে যে কোন টুর্ণামেন্টে সর্বাধিক ম্যাচে টানা জয়ের রেকর্ড..................

চমকপ্রদ নৈপুণ্য অক্ষুন্ন রেখে ধারাবাহিক ১৮ ম্যাচে জয়ের রেকর্ডে পৌঁছে যাওয়া লা লিগার শীর্ষ পয়েন্টধারী রিয়াল মাদ্রিদ এখন নতুন রেকর্ড গড়ার দিকে তাকিয়ে আছে।

শনিবার সেল্টাভিগোর বিপক্ষে লীগ ম্যাচে জয় পেলেই তারা পৌঁছে যাবে নতুন রেকর্ডে। আর সেটি হচ্ছে যে কোন টুর্ণামেন্টে সর্বাধিক ম্যাচে টানা জয়ের রেকর্ড।

গত সপ্তাহে তারা মালাগাকে হারিয়ে নিজেদের টানা সর্বোচ্চ ১৫ ম্যাচ জয়ের রেকর্ড ছাড়িয়ে যায়। এখন বার্সেলোনার ২০০৫/০৬ মৌসুমে টানা ১৮ ম্যাচ জয়ের রেকর্ড ভাঙ্গার অপেক্ষায় রয়েছে ইউরোপীয় চ্যাম্পিয়নরা।

টানা জয়ের ধারাবাহিকতায় থেকে মাদ্রিদ এ পর্যন্ত গোল করেছে ৬৪টি। বিপরীতে হজম করেছে ৯ গোল। এত কিছুর পরও তারা জানে সেল্টার বিপক্ষে তাদেরকে অগ্নিপরীক্ষার সম্মুখীন হতে হবে। কারণ গত মাসেই এ দলটি ন্যু ক্যাম্প থেকে পূর্ণ তিনটি পয়েন্ট আদায় করে নিয়েছিল। আর সেপ্টেম্বর মাসে তারা অ্যাথলেটিকো মাদ্রিদের সঙ্গে এ্যাওয়ে ম্যাচে ড্র করে ভাগ বসিয়েছিল লীগ পয়েন্টে। কোপা দেল রের ম্যাচে তৃতীয় সারির দল কর্নেলার বিপক্ষে দুই গোল করা জেমস রড্রিগুয়েজ রিয়াল মাদ্রিদের একমাত্র খেলোয়াড় হিসেবে টানা চার ম্যাচে গোল করার নজীর সৃষ্টি করেছেন।

যে কারণে কোচ কার্লো আনচেলত্তি কোনভাবেই চাইবেননা এরকম একজন ফর্মে থাকা খেলোয়াড়কে রাজধানীতে অনুষ্টিতব্য ম্যাচে হাতছাড়া করতে। ইতালীয় ওই কোচ বলেন, ‘সে (রড্রিগুয়েজ) বর্তমান সময়ে অসাধারণ পারফর্মেন্স প্রদর্শন করছে। তাকে পেয়ে আমরা খুবই সন্তুষ্ট। সে নিশ্চতভাবে আরো উন্নতি করবে। আমি তার মনোভাব সত্যি পছন্দ করেছি। কারণ সে খুবই বিনয়ী এবং এটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এমন বিনয়ী ও মানসম্পন্ন খেলোয়াড় দলের জন্য খুবই দরকারী।’

ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো মঙ্গলবার একটি অসাধারণ রাত উপহার দিয়েছেন। বছরের বিশ্বসেরা এই তারকা এখন সবধরনের আরাম আয়েস ছেড়ে গোলবক্সের সামনে ধারবাহিক পারফর্ম করার অপেক্ষায় রয়েছেন। তিনি লীগের মাত্র ১২টি ম্যাচ থেকে ইতোমধ্যে ২০টি গোল আদায় করে নিয়েছেন।

এদিকে দীর্ঘ ৯মাস ইনজুরিতে ভোগার পর সপ্তাহের মধ্যভাগে লড়াইয়ে ফেরা জেসি রড্রিগুয়েজও চলতি মৌসুমের প্রথম লা লীগা ম্যাচে খেলার সুযোগ পেতে যাচ্ছেন। মানষিক চাপ জনীত কারণে বিশ্রামে চলে যাওয়া সামি খেদিরাও এখন পরিপূর্ণ ফিটনেস ফিরে পেয়েছেন। সব কিছু মিলিয়ে প্রত্যাশিত ফলাফলেরই অপেক্ষায় রয়েছে রিয়াল মাদ্রিদ।

এদিকে কাতালানিয় ডার্বিতে রোববার এস্পানিয়লকে আথিথেয়তা দিতে যাচ্ছে পয়েন্ট তালিকার শীর্ষে জায়গা করে নেয়ার অপেক্ষায় থাকা বার্সেলোনা। ওই ম্যাচে জয় পেলে টানা ছয় ম্যাচে জয়ের ধারা ধরে রাখতে সক্ষম হবে বার্সেলোনা। গত অক্টোবরে ফিরতি এল ক্লাসিকোতে অংশগ্রহণের পর দুর্বলতাজনীত কারণে আর মাঠে ফিরেননি আন্দ্রেস ইনিয়েস্তা। ওই ম্যাচে ৩-১ গোলে পরাজিত হয়েছিল বার্সা। বুধবার হুয়েস্কার বিপক্ষে কোপা দেল রে’র ম্যাচ দিয়ে মাঠে ফিরেন সাবেক ওই বর্ষসেরা।

৮ মাসের মধ্যে প্রথম গোলটিও আদায় করেন তিনি। যেখানে ৪-০ গোলে জয়লাভ করেছিল বার্সেলোনা। স্পেনের এই মিডফিল্ডার বলেন,‘ দীর্ঘ বিরতীর পর আবার রড়াইয়ে ফেরা খুব একটা সহজ কাজ নয়। কিন্তু আমি স্বস্তিবোধ করছি, এবং এটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ। কোন ধরনের অসুবিধা বোধ না করেই আমি খেলতে পেরেছি। ওই ম্যাচে খেলার জন্য প্রস্তুত আছেন লিওনেল মেসি, নেইমার, জর্ডি আলবা ও সার্জিও বাসকুইটস এরমত নামী দামী তারকারাও। গোল রক্ষক হিসেবে শুরু করতে পারেন ক্লদিও ব্রাভো।

শনিবার এলিচের সঙ্গে লড়াইয়ের মাধ্যমে সাময়িকভাবে বার্সেলোনাকে টপকে যাবার সুযোগ থাকছে বর্তমান চ্যাম্পিয়ন অ্যাথলেটিকো মাদ্রিদের। সাময়িক ছন্দপতন ঘটলেও মালাগা ও ডিপোর্তিবোর বিপক্ষে পরপর জয়লাভের মাধ্যমে শিরোপার জয়ের লড়াইয়ে ফের ফিরে এসেছে অ্যাথলেটিকো।