Buscar
santiniketan
 ইন্দোনেশীয় উড়োজাহাজের খোঁজে তল্লাশি

ইন্দোনেশীয় উড়োজাহাজের খোঁজে তল্লাশি

ইন্দোনেশীয়

সমুদ্রের নীচেই রয়েছে উধাও হয়ে যাওয়া ইন্দোনেশীয় বিমান কিউজেড-৮৫০১। রেডার-তথ্য বিশ্লেষণ করে সন্ধানকারী দলের তরফে এমনটাই জানানো হয়েছে। রবিবার সকালে ইন্দোনেশিয়া থেকে সিঙ্গাপুর যাওয়ার পথে ১৫৫ জন যাত্রী ও ৭ জন কর্মী-সহ মাঝ আকাশ থেকে উধাও হয়ে যায় এয়ার এশিয়ার ওই বিমানটি। সারা দিন খুঁজেও বিমানটির সন্ধান পাওয়া যায়নি। খারাপ আবহাওয়া ও অন্ধকার নেমে আসার কারণে ওই দিন সন্ধ্যায় সন্ধানকাজ স্থগিত করে দেওয়া হয়। সোমবার দিনের আলো ফুটতেই ফের শুরু হয় সন্ধানের কাজ।

 
 বিমান ও ট্রেন চলাচল  ব্যাহত কুয়াশায় জন্য

বিমান ও ট্রেন চলাচল ব্যাহত কুয়াশায় জন্য

শীতের সকালে কুয়াশার জেরে বিপর্যস্ত বিমান ও ট্রেন চলাচল। দৃশ্যমানতা কম থাকায় উড়তে দেরি করল বেশ কিছু বিমান। ব্যাহত হল হাওড়া ও শিয়ালদহ শাখায় দূরপাল্লার ট্রেন চলাচল।ঘন কুয়াশার জেরে শনিবার সকালে প্রায় তিন ঘন্টার জন্য বন্ধ থাকল কলকাতা বিমানবন্দরে উড়ান চলাচল। ক্যাট ২ বি প্রযুক্তি ব্যবহারের পর থেকে সর্বনিম্ন ৩০০ থেকে ৩৫০ মিটার পর্যন্ত দৃশ্যমানতায় অবতরণ করা যায় কলকাতা বিমানবন্দরে। বিমানবন্দর সূত্রের খবর, এ দিন সকালে ওই দৃশ্যমানতা নেমে যায় ৫০ মিটারে। ফলে, একেবারে বন্ধ হয়ে যায় বিমানের ওঠা-নামা।

ইন্দোনেশিয়ায় কাদা ও মাটির ধসে মৃতের সংখ্যা বেড়েছে

ইন্দোনেশিয়ায় কাদা ও মাটির ধসে মৃতের সংখ্যা বেড়েছে

ইন্দোনেশিয়া

ইন্দোনেশিয়ায় কাদা ও মাটির ধসে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ৩২। এখনও নিখোঁজ বহু।বৃহস্পতিবার ও শুক্রবার ইন্দোনেশিয়ার জাভায় পর পর দু’টো ধসে নিশ্চিহ্ন হয়ে গিয়েছে গোটা একটা গ্রাম। মধ্য জাভার বানজারনেগারা জেলার জেমব্লাঙ্গ গ্রামে প্রবল বৃষ্টির ফলে কাদা-মাটির ওই ধসে বাড়ি-ঘর চাপা পড়ে প্রাণ হারিয়েছেন বহু গ্রামবাসী। মাত্র ২৪ ঘণ্টার ব্যবধানে দু’টি ধসের ফলে নিশ্চিহ্ন হয়ে গিয়েছে শতাধিক বাড়ি।.......

বইমেলায় থাকছে অ্যানড্রয়েড  অ্যাপ‍্স

বইমেলায় থাকছে অ্যানড্রয়েড অ্যাপ‍্স

এবার বইমেলায় থাকছে বিশেষ অ্যাপ‍্স৷‌ পছন্দের বইয়ের স্টল কোথায় আছে, জেনে নেওয়া যাবে এই অ্যাপ‍্সের সাহায্যে৷‌ যে-কোনও অ্যানড্রয়েড মোবাইলেই এই অ্যাপ‍্স ডাউনলোড করা যাবে৷‌ ...............

মেসির হ্যাট্রিক জয় বার্সার

মেসির হ্যাট্রিক জয় বার্সার

১৩ মিনিটে এসপানিয়লকে এগিয়ে দিয়েছিলেন সার্জিও গার্সিয়া। শুধু তা-ই নয়, গোলরক্ষককে একা পেয়েও বার্সার জালে বল ঠেলতে পারেনি এসপানিয়ল। ২-০ হয়ে গেলে ম্যাচটার চেহারা হয়তো অন্য রকম হতো।............

 

মোদীকেদিলেন  চিঠি মমতা

মোদীকেদিলেন চিঠি মমতা

মুখ্যমন্ত্রী হওয়ার পর থেকেই রাজ্যের হাতে আরও বেশি ক্ষমতা দেওয়ার দাবিতে বারেবারে সরব হয়েছেন তিনি। কিন্তু যে বৈঠকে রাজ্যকে আরও বেশি ক্ষমতা দেওয়ার বিষয়টি নিয়ে আলোচনা হলো, সেখানে স্রেফ রাজনৈতিক কারণে গরহাজির মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়! নেহরুর আমলের যোজনা কমিশন তুলে দিয়ে নতুন কমিটি গড়া নিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর ডাকা বৈঠকে চারটি বাদে দেশের সব রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী হাজির থাকলেও পশ্চিমবঙ্গের প্রতিনিধি হিসেবে ছিলেন অর্থমন্ত্রী অমিত মিত্র।

 
ওবামার কন্যা গর্ভবতী!

ওবামার কন্যা গর্ভবতী!

অমেরিকা

মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার ষোড়শী কুমারী কন্যা মালিয়া নাকি গর্ভবতী!  এমন খবর জানিয়েছে চটুল সংবাদমাধ্যম অ্যাম্পায়ার নিউজ। সংবাদটি সামাজিক যোগাযোগ-মাধ্যমে তুমুল আলোচিত হচ্ছে। তবে এ নিয়ে বিতর্ক ও সমালোচনাও কম হচ্ছে না। বিশ্বের প্রভাবশালী দেশের প্রেসিডেন্টের মেয়ে বলে কথা।...................

আইএস-সন্ত্রাস রোখার ডাক পোপের

আইএস-সন্ত্রাস রোখার ডাক পোপের

সন্ত্রাস রোখার বার্তা আগেই দিয়েছিলেন, এ বার লিখিত আবেদন প্রকাশ করলেন পোপ ফ্রান্সিস। সারমর্ম একটাই বন্ধ হোক সন্ত্রাস, শেষ হোক মৃত্যুমিছিল। পাশাপাশি, জঙ্গিহানায় আক্রান্তদের পুনর্বাসনের বিষয়টিকেও গুরুত্ব দেওয়ার কথা বলেছেন তিনি।..................

 মহানগরি দখলের ডাক দিল অমিত শাহ

মহানগরি দখলের ডাক দিল অমিত শাহ

ভিক্টোরিয়া হাউসের সামনে অমিত শাহর সভার মূল সুর ছিল ২০১৬-য় বাংলা দখল৷‌ আর তারই প্রথম পদক্ষেপ হিসেবে তাঁদের লক্ষ্য কলকাতা পুরসভা দখল৷‌ সভায় নেতারা ভাষণে বলেন, বাংলা এখন আবার পরিবর্তনের মুখে এসে দাঁড়িয়েছে৷‌ দলের কেন্দ্রীয় সভাপতি অমিত শাহ রবিবার এই সভায় বললেন, তৃণমূলের কাউন্টডাউন শুরু হয়ে গিয়েছে৷‌ শ্রোতাদের উদ্দেশে তিনি বলেন, আপনারা বাংলায় রাজ করার জন্য কমিউনিস্টদের সুযোগ দিয়েছেন৷‌ তৃণমূলকে সুযোগ দিয়েছেন৷‌ এবার বি জে পি-কে একবার সুযোগ দিন৷‌...........

যখন-তখন উধাও রাহুল গাঁধী

যখন-তখন উধাও রাহুল গাঁধী

তিনি কি সুকুমার রায়ের ‘গেছোদাদা’? নাকি কংগ্রেসের কিছু নেতার বিশ্লেষণই ঠিক! যাঁরা খেদের সঙ্গে বলছেন, “বোঝে না সে বোঝে না! কখন কী করা উচিত, ওঁর তালজ্ঞান নেই!” রাহুল গাঁধীর কথা হচ্ছে।গত ৩০ অক্টোবরের কথাই ধরুন। কংগ্রেস শীর্ষ নেতৃত্ব তখন ঘোর আশঙ্কায়। ঠিক পরের দিন ইন্দিরা গাঁধীর মৃত্যুবার্ষিকী। অথচ সেই দিনটাতেই মহা সমারোহে বল্লভভাই পটেলের জন্মদিন পালন করতে চলেছে মোদী সরকার। এ কি ইন্দিরা-স্মরণকে ঢেকে দেওয়ার কৌশল? বৈঠক বসল দশ জনপথে। ভাবা হয়েছিল, দলের সহ-সভাপতিও আছেন বুঝি বৈঠকে! কিন্তু কোথায় তিনি? খোঁজ খোঁজ! জানা গেল, রাহুল গিয়েছেন দিল্লির প্রদেশ কংগ্রেস দফতরে, রাজ্য রাজনীতি নিয়ে আলোচনা করতে!............